বৃহস্পতিবার ৩০ মার্চ ২০১৭ || সময়- ১০:৪৩ am
৬ দিনের ধর্মঘটে ঢাকার মাংস ব্যবসায়ীরা
রবিবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০১৭ , ১২:৫৪ pm
মাংস ব্যবসায়ীরা

নিউজ ডেস্ক
ঢাকা :
গেল ৮ মাস ধরে গাবতলী গরু হাটে অতিরিক্ত খাজনা আদায় এবং ইজারাদারদের বাহিনী দিয়ে মাংস ব্যবসায়ীদের ওপর নির্যাতন করার অভিযোগ এনে মাংস ব্যবসায়ীরা বলছেন, এসবের প্রতিবাদে ১৩ ফেব্রুয়ারি থেকে ১৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ঢাকার সব মাংসের দোকান বন্ধ রাখবেন তারা।

রোববার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আয়োজিত এক প্রতিবাদ সমাবেশে ঢাকা মেট্রোপলিটন মাংস ব্যবসায়ী সমিতি এ ঘোষণা দেয়। সিটি কর্পোরেশনের মেয়রের কাছে বারবার আবেদন করেও এর কোনো সুরাহা হয়নি বলেও অভিযোগ তাদের।

মাংস ব্যবসায়ীরা বলছেন, আগামী ছয় দিনের মধ্যে যদি সমস্যার সমাধান না হয় তাহলে অনির্দিষ্টকালের জন্য সারাদেশের মাংসের দোকান বন্ধ রাখা হবে।  

বাংলাদেশ মাংস ব্যবসায়ী সমিতির মহাসচিব রবিউল ইসলাম অভিযোগ করেন, সীমান্ত থেকে গরুর হাট পর্যন্ত ২০ থেকে ৩০ হাজার টাকা গরুপ্রতি চাঁদাবাজি হচ্ছে। সরকারের আদেশ অমান্য করে অতিরিক্ত খাজনা আদায় করা হয়। এ বিষয়ে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে মেয়র আনিসুল হকের কাছে শত শত আবেদন করা হয়েছে, চাঁদাবাজির ফিরিস্তি দেয়া হয়েছে। মেয়র একাধিকবার এসব সমস্যার সমাধানের নির্দেশ দিলেও দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তারা ইজারার শর্ত বাস্তবায়নে নানা ধরনের টালবাহানা করে যাচ্ছেন। সমাবেশে বাংলাদেশ মাংস ব্যাসায়ী সমিতির সভাপতি আব্দুল বারেকসহ  রাজধানীর মাংস ব্যাবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন।

 


প্রহরনিউজ/কৃষি ও প্রাণিজ/তামান্না